Categories
Uncategorized

রাত ৮টার মধ্যে দোকান-পাটসহ সবধরনের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান বন্ধের ঘোষণা

রাত ৮টার মধ্যে দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন এলাকায় দোকান-পাটসহ সবধরনের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান বন্ধ করার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ

সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস। নিয়মিত সাপ্তাহিক পরিদর্শনের অংশ হিসেবে মেয়র আজ বুধবার (১৮ নভেম্বর) দুপুরে রাজধানীর টিকাটুলির শেরে বাংলা মহিলা মহাবিদ্যালয়ের ‘শেখ হাসিনা একাডেমিক ভবন’ উদ্বোধনে গিয়ে প্রধান অতিথির

বক্তব্যে এ আহ্বান জানান।ডিএসসিসি মেয়র বলেন, ‘আমরা শহরটাকে একটি সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার আওতায় নিয়ে আসতে চাই। আমরা রাত ৮টার মধ্যে সব ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান, দোকান-পাট বন্ধ করতে চাই। বহির্বিশ্বে দেখি একটি সুনির্দিষ্ট সময়ের পরে সবকিছু বন্ধ হয়ে যায়। বিকাল-রাত (৫টা, ৬টা, ৭টা, ৮টা, ৮টা) বিভিন্নক্ষেত্রে এলাকাভিত্তিক সেই সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়।

আমরা মনে করি, ঢাকাবাসীর জন্য শহরের দোকান-পাট, ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান রাত ৮টার মধ্যে বন্ধ করলে আমাদের সামগ্রিক কার্যক্রম একটি সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার আওতায় আনতে পারব।’ মেয়র মনে করেন, রাত ৮টার মধ্যে দোকানপাট বন্ধ হলে রাজধনী যানজট থেকে অনেকটা মুক্তি পাবে, মানুষ পরিবার ও সন্তানকে সময় দিতে পারবে।

মেয়র তাপস বলেন, ‘আমাদের সন্তানদেরকে সুনাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে হলে সব বাবা-মাকে সন্তানের সঙ্গে সময় দেয়া অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আমরা অনেক সময় সেটা ভুলে যাই। আমরা ক্লান্ত হয়ে বাসায় যাই, নিজেদের মতো করে হয়ত ঘুমিয়ে পড়ি বা অন্য কাজে ব্যস্ত হয়ে যাই। কিন্তু সন্তানকে সময় দেয়া জাতি গঠনে একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। সুতরাং সবকিছু বিবেচনা করে আমরা রাত ৮টা পর্যন্ত দোকান-পাট, ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান খোলা রাখার জন্য সময় নির্ধারণ করেছি।

এটি কার্যকর করার জন্য সবার সহযোগিতা কামনা করছি।’ এর আগে আজিমপুর আধুনিক নগর মার্কেটের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠানে তাপস বলেন, ‘আজকের এই ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের মাধ্যমে এই মার্কেটের কাজ আরম্ভ করছি। এখানে ক্ষণগণনা ফলক থাকবে। ইনশাআল্লাহ আমরা নির্দিষ্ট ২ বছর সময়ের মধ্যে এই কাজটি সম্পন্ন করতে পারি সেজন্য এখানে আমরা ক্ষণগণনা ফলক দিয়ে দেব।’

এ সময় গণশৌচাগার নিয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে মেয়র তাপস বলেন, ‘আমরা এরই মাঝে ওয়ার্ডভিত্তিক কতগুলো গণশৌচাগার প্রয়োজন, কোন কোন ওয়ার্ডে প্রয়োজনীয়তা বেশি সেটার সমীক্ষা করছি। আমরা প্রতিটি ওয়ার্ডে অন্তত একটি করে গণশৌচাগার করব। যেসব এলাকায় জনসাধারণের যাতায়াত বেশি, সেখানে আমরা বেশি করে গণশৌচাগার করব। এজন্য আমরা

এরই মাঝে প্রকৌশল বিভাগকে নির্দেশ দিয়েছি এবং প্রকৌশল বিভাগ একটি প্রকল্প প্রণয়নের জন্য সমীক্ষা করছে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *