Categories
Uncategorized

প্রে’মের পর বিয়ে করতে ব’লায় প্রবাসীর স্ত্রী’কে শে’ষ করে দেয় চেয়া’রম্যানের ছেলে !

কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে প্রবাসীর স্ত্রী সাবিনা আক্তারকে (২০) প্রা’নে মা”রা’য় জ’ড়ি’ত প্রধানকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১৪, সিপিসি, ভৈরব

ক্যাম্প। উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করে ২৭ জানুয়ারি রাতে নেত্রকোনা জেলার দূর্গাপুর থানার বিরিশিরি এলাকা থেকে মো. সাইফুজ্জামান তানভীরকে’ গ্রে”প্তার করা হয় গ্রে”প্তা’রকৃত তানভীর কটিয়াদী উপজেলার মুমুরদিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সৈয়দুজ্জামানের ছেলে।

বৃহস্পতিবার বিকালে প্রেস ব্রিফিংয়ে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-১৪, সিপিসি-৩, ভৈরব ক্যাম্পের কোম্পানি অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রফিউদ্দীন মোহাম্মদ যোবায়ের। তিনি জানান, ঘটনার এক মাস আগে কটিয়াদী বাজারে তানভীর ও সাবিনা আক্তারের পরিচয় হয়। এরপর দু’জনের মধ্যে মোবাইলে নাম্বার দেয়া নেয়া হয়।

পরবর্তীতে দু’জনের মধ্যে প্রে”মে’র স’ম্প’র্ক গড়ে উঠে। এক পর্যায়ে তানভীর ও সাবিনা আক্তার শা’’রী”রি’ক ‘স’ম্প”র্কে ‘লি”প্ত হয়।ঘটনার দিন ৫ জানুয়ারি দিবাগত রাত ১১ টায় মো. সাইফুজ্জামান তানভীর সাবিনার বাবার বাড়ী কমরভোগ এলাকার একটি বারিন্দার ঘরে অবস্থান করে। সেখানে তাদের দু’জনের মধ্যে ‘শা”রী’রি’ক স’’ম্প”র্ক শেষে সাবিনা আক্তার তানভীরকে বি’য়ে’র প্র”স্তাব দেয়। তানভীর

সাবিনার প্রস্তা’বটি প্র”ত্যা’খা’ন করে সাবিনাকে বুঝা’নোর চেষ্টা করে ব্য”র্থ হয়। এতে তানভীর ‘ক্ষি”প্ত হয়ে ‘ছু”রি’ দিয়ে সাবিনার পে’টে বু’কে আ”ঘা’ত করে এবং ‘গ”লাকে”টে ফে”লে। তার ‘মৃ”ত্যু’র নিশ্চিত করে সাবিনার ফোন, সোনার চেইন, কানের দুল নিয়ে ‘পা”লি’য়ে যায় তানভীর। এ ঘটনায় সাবিনার মা মদিনা আক্তার গত ৮ জানুয়ারি

অ”জ্ঞা’ত পরিচয় কয়েকজনকে আ’সা”মি করে থানায় মা”ম’লা করেন। মা”ম’লা’র দায়েরের পরপরই র‌্যাবের নিরবি”চ্ছি’ন্ন গোয়েন্দা নজ’রদা’রী চালায়। সাবিনা আক্তার পৌরসভার কমরভোগ গ্রামের ফুলু মিয়ার কন্যা ও দ্বীন ইসলামের স্ত্রী। গত ৮ জানুয়ারি মামলার ত’দ”ন্তের দায়িত্ব দেয়া হয় কটিয়াদী মডেল থানার এসআই মোস্তাফিজুর রহমানকে। তিনি গণমাধ্যমকে জানান, ‘সোনার চেইন ও কানের দুল ফাহিম স্বর্ণ শিল্পালয়ের মালিক মীর মো. শামীম এর কাছে ৩৫ হাজার টাকায় বি’ক্র”য় করে। উক্ত সোনার চেইন ও কা’নের দুল

কটিয়াদী থানার পুলিশ ফাহিম স্বর্ণ শিল্পালয়ের মালিক মীর মো. শামীমের কাছ থেকে উ”দ্বা’র করে বলে জানায়।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *