Categories
Uncategorized

লাচ্ছা সেমাই নয়, নোয়াখালীতে তৈরী হচ্ছে লাচ্ছা বিষ!

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে নকল মোড়ক ব্যবহার ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে লাচ্ছা সেমাই তৈরী করাসহ বিভিন্ন অপরাধে ৫টি প্রতিষ্ঠানকে ৩ লক্ষ

টাকা ৬৫ হাজার টাকা অর্থদন্ড করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। শনিবার (০১ মে) দুপুর ১২টা থেকে দুপুর পৌনে ৩টা পর্যন্ত এ অভিযান পরিচালনা করেন বেগমগঞ্জ উপজেলা কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কামরুল হোসেন চৌধুরী। এ সময় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায়

সহযোগিতা করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ও র‌্যাব ১১-এর কোম্পানী কমান্ডার খন্দকার মো.শামীম হোসেন। ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা যায়, উপজেলার চৌমুহনী বাজারের বাবুল মিয়ার কারখানায় ৪টি নকল মোড়কে লাচ্ছা সেমাই প্যাকের্টিংয়ের কাজ চলছিল। স্থানীয়রা বলেন “এটি লাচ্ছা সেমাই নয়, এটি হলো লাচ্ছা বিষ”। ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে নকল

মোড়কে সেমাই বাজারজাত করার অভিযোগে ওই প্রতিষ্ঠানকে ১ লক্ষ টাকা অর্থদন্ড করা হয়। আনন্দ সেমাই কারখানায় অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে সেমাই তৈরী এবং সেমাই তৈরীতে ভেজাল ঘি, আটা ব্যবহারের কারণে ওই প্রতিষ্ঠানকে দেড় লক্ষ টাকা অর্থদন্ড করা হয়। এছাড়াও নকল সেমাই মজুদ করায় মেসার্স জুলফিকার আলী ভুট্রোর প্রতিষ্ঠানকে

৫০ হাজার টাকা অর্থদন্ড করা হয়। একই অপরাধে প্রাণ ফিড নামে একটি প্রতিষ্ঠানকে ১৫ হাজার টাকা অর্থদন্ড করা হয়। অপরদিকে, অবৈধভাবে চানাচুর তৈরীর অভিযোগে একটি প্রতিষ্ঠানকে ৫০হাজার টাকা অর্থদন্ড করে ভ্রাম্যমাণ আদালত। অভিযানে লাচ্ছি সেমাইসহ নকল মোড়ক জব্দ করে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে নকল মোড়ক ব্যবহার ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে লাচ্ছা সেমাই তৈরী করাসহ বিভিন্ন অপরাধে ৫টি প্রতিষ্ঠানকে ৩ লক্ষ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *