Categories
Uncategorized

পিলারে বাসা বেঁধেছে বুলবুলি, বাচ্চা ফুটানো পর্যন্ত নির্মাণ কাজ বন্ধ

ছোট্ট পাখি বুলবুলি। নির্মাণাধীন ভবনের একটি পিলারে বানানো বাসাটিও তেমন বড় নয়। ছোট্ট ওই বাসাটি চোখ এড়ায়নি ভবন মালিকের।

পেশায় আইনজীবী ওই মানুষটি বন্ধ করে দেন নির্মাণ কাজ। উদ্দেশ্য, পাখিটি নিরাপদে থাকুক। দিন যায়, পাখিটি সেখানে ডিম পাড়ে। এবার অপেক্ষা বাচ্চা ফুটানোর। যে কারণে এখনো বন্ধ রয়েছে ভবনের একাংশের নির্মাণ কাজ। পাখিটি বাচ্চা না দেওয়া পর্যন্ত ভবনের পিলারের কাজ

বন্ধ করে রেখেছেন। নির্মাণ শ্রমিকরাও সেই পিলারটির দিকে এখন আর যান না। পাখি প্রেমের এমন ঘটনা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায়। আইনজীবী মনির হোসেন চৌধুরীর ‘উদারতায়’ পাখিটি ডিম থেকে বাচ্চা ফুটানোর অপেক্ষায়। আর এ কারণে তিনি প্রায় এক মাস ধরে বন্ধ রেখেছেন বাড়ির একাংশের নির্মাণ কাজ। মো. মনির হোসেন চৌধুরী জানান,

তিনি পৌর এলাকার সড়ক বাজারে চৌধুরী ট্রেড সেন্টার নামে একটি মার্কেটের নির্মাণ কাজ করছেন। মাসখানেক আগে নির্মাণাধীন পিলারে পাখিটিকে বাসা বাধতে দেখেন। শুরুতে তেমন একটা আমলে নেননি। এক পর্যায়ে পাখিটি দুটি ডিম পাড়লে মনে দাগ কাটে। তিনি ওই পিলারসহ মার্কেটের একাংশের কাজ বন্ধ করে দেন।

কালের কণ্ঠকে তিনি বলেন, ‘ডিম পাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই আমি একটি অংশে কাজ বন্ধ রাখতে বলি। এতে আমার কিছুটা আর্থিক ও সময়ের ক্ষতি হয়। কিন্তু পাখিটা ডিম থেকে বাচ্চা ফুটালো আমার মনে তৃপ্তি আসবে। সেই অপেক্ষাতেই আমি আছি। দুটি প্রাণ আমার কারণে পৃথিবীতে আসার সুযোগ পাবে এর চেয়ে ভালো লাগার আর কি আছে।’

তবে পাখিটি রবিবার নাগাদ বাচ্চা ফুটিয়েছে কী না সে বিষয়টি তিনি নিশ্চিত নন। কেননা, ডিম ফুটার পর থেকে সেখানে কাউকে যেতে দেন

না কিংবা নিজেও সেখানে যান না। পাখিটি যেন কোনো কারণে চলে না যায় সে কারণেই তিনি অধিক সতর্ক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *