Categories
Uncategorized

মুনিয়ার মৃ’ত্যু: তদন্ত প্রতিবেদন জ’মা দেয়নি পুলিশ

রাজধানীর গুলশানে কলেজছাত্রী মো;সারাত জাহান মুনি;য়ার মৃ;ত্যু;র ঘ;টনায় বসুন্ধ;রা গ্রু;পের ব্যব;স্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান

আনভীর ;বিরু;দ্ধে করা;; মামলা;র; তদন্ত ;প্রতিবেদন জ;মা ;দেয়;নি পুলিশ। সোমবার আ;দালতে তদ;ন্ত প্রতি;বেদন দেয়ার; কথা ছিল। তবে আ;দাল;তের কা;ছে সময় ;চেয়েছে; মা;ম;লার ;তদ;ন্ত কর্ম;কর্তা গুল;শান বিভা;গের উপ-;কমিশনার সুদীপ কুমার চক্রবর্তী।

সম্প্র;তি গুল;শান থানার ও;সি আবুল হাসান বলেন, তদন্ত প্র;তিবেদন ;শেষ করতে হলে ময়;নাত;দ;ন্তের প্রতি;বেদন লাগবে। কিন্তু সে; প্রতিবে;দন আম;রা এখনও পাই;নি। তাই নির্ধা;রিত দিনে প্রতি;বেদন জ;মা দেয়া সম্ভ;ব হবে না। আমরা ওই দিন আ;দালতকে বিষয়;টি জানা;বো। হয়তো নিয়মা;নুযায়ী আদা;লত আ;রো সময় বাড়াবেন।

গত ২৬ এপ্রিল সন্ধ্যায় রাজধানীর গুলশান-২ এর ১২০ নম্বর স;ড়কের ১৯ নম্বর ভবনের ৩/বি ফ্ল্যা;টে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে ঝুল;ন্ত অবস্থায় মুনিয়ার ম;র;দেহ উ;দ্ধার করে গুল;শান থা;না-পুলিশ। এ ঘটনায় আ;ত্মহত্যা;র প্ররো;চনা দেয়ার অভি;যোগ এনে বসুন্ধ;রা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক; (এমপি) সায়েম সোবহান আনভী;রের বিরু;দ্ধে মা;মলা ;দায়ের করেন

মৃ;তের বড় বোন নুসরাত জাহান। মাম;লা;র অভি;যোগে বলা হয়েছে, সায়ে;ম সো;বহানের স;ঙ্গে প্রে;মের স;ম্পর্ক ছিল মুনি;য়ার। প্র;তি মাসে এক লাখ টাকা ভাড়ার বিনি;ময়ে ;মু;নিয়াকে ওই ফ্ল্যা;টে রেখেছি;ল সা;য়েম সো;বহান আনভীর। তিনি নিয়;মিত ওই বাসায় যাতা;ত করতো। তারা ;স্বামী-স্ত্রীর মতো করে থাকতো।

মুনি;য়ার ব;ড় বোন অ;ভিযোগ করেছেন, তার বোন;কে বিয়ে;র কথা বলে ওই ফ্ল্যা;টে রেখে;ছিল। একটি ছবি ফেসবু;কে দেয়াকে কে;ন্দ্র করে আন;ভীর তার বোনের ওপর ক্ষিপ্ত হয়। তাদের মনে হচ্ছে, মু;নিয়া আ;ত্মহ;ত্যা করেনি। তাকে হ;ত্যা করা হয়ে থাক;তে পারে। এ মাম;লায় গত ২৭ এপ্রিল ঢাকা মেট্রোপ;লিটন ম্যাজিস্ট্রে;ট আবু সুফিয়ান মো. নো;মানের

আদাল;ত এজা;হার গ্রহণ করে আজ পুলি;শের ত;দন্ত ;প্রতিবেদন; দাখিলের দিন ধার্য ছিল। সূত্রঃ সময়টিভি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *