Categories
Uncategorized

গভীর রাতে মাকে জাপটে ধরতেই প্রতিবেশীর পু;রুষা;ঙ্গ কা;টল মেয়ে

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে ধ;;র্ষ;ণ করতে গিয়ে নিজের পু;রুষা;;ঙ্গ হারিয়েছেন শাহ আলম নামে এক যুবক। যদিও শাহ আলমের দাবি,
শত্রুতার জেরে কৌশলে ডেকে

নিয়ে তার সঙ্গে এমন কাণ্ড ঘটানো হয়েছে। এ ঘটনায় শনিবার সোনারগাঁও থানায় মামলা করেছেন ভুক্তভোগী গৃহবধূ। এর আগে, শুক্রবার রাতে উপজেলার সনমান্দী ইউনিয়নের দৌলরদী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। শাহ আলম বর্তমানে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তিনি দৌলরদী গ্রামের মোস্তফা মিয়ার ছেলে।

ভুক্তভোগী গৃহবধূ জানান, ব্যবসার কাজে বাড়ির বাইরে থাকেন তার স্বামী। এ সুযোগে তাকে দীর্ঘদিন ধরে কুপ্রস্তা;ব দিচ্ছিলেন প্রতিবেশী শাহ আলম। বিষয়টি নিয়ে শাহ আলমকে বারবার সতর্ক করেন তিনি। কিন্তু কোনো লাভ হয়নি। শুক্রবার রাতে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হন তিনি। এ সুযোগে আগে থেকেই ওত পেতে থাকা শাহ আলম তার ঘরে ঢোকেন।

এরপর তিনি ঘরে ঢুকতেই জা;পটে ধরেন শাহ আলম। ধ;স্তাধ;স্তির একপর্যায়ে নিজের সম্ভ্রম বাঁচাতে চিৎকার দেন। পরে শাহ আলমকে ধরে বেঁধে ফেলেন তার মেয়ে ও জামাই। এরপর ব্লে;ড দিয়ে তার পু;;রুষা;ঙ্গ কা;টা হয়। অভিযোগ অস্বীকার করে শাহ আলম জানান, পূর্বশত্রুতার জের ধরে একা পেয়ে কৌশলে ডেকে নিয়ে তাকে বেঁধে পু;রুষা;;ঙ্গ কে;;টে দেন ওই গৃহবধূ ও

তার লোকজন। সোনারগাঁও থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এসএম শফিকুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় অভিযোগ নেয়া হয়েছে। বিষয়টির তদন্ত চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *