Categories
Uncategorized

ঘুরতে আসা তরুণ-তরুণীকে অ’সামাজিক কা’র্যক’লাপের অ’ভিযোগে মা’র’ধ’র

ঘুরতে আ’সা দুই তরুণ-তরুণীকে স্থানীয় কয়েকজন যুবক মা’রধর করেছে। সেই মারধরের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্য’মে ভাইরাল হয়েছে।

বুধবার (২৬ জানুয়ারি) দুপুরে রাজশাহীর তানোর উপজেলার তালন্দ-চৌবা’ড়িয়া লবাতলা ব্রি’জ সংলগ্ন রাস্তায় এ ঘটনা ঘটে। ভিডিওতে দেখা যায়, তালন্দ-সমাসপুর গ্রামের মইনুল ও রাজু নামে দুজন মিলে ঘুরতে আসা অপরিচিত এক কিশোর ও এক কিশোরীকে বেধ’ড়ক মারপি’ট

এবং অ’শ্লীল ’ভাষা’য় গালা’গাল করছে। অ’ভিযুক্তরা তরুণ-তরুণীর বিরু’দ্ধে রাস্তা’র পাশে অসামাজিক কার্য’কলাপের অভি’যোগ এনে মা’রধ’র’ করে। এ সময় দুই স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মী ওই রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় ঘটনা দেখে বখাটেদের বাধা দেন ও মোবাইল ফোনে ভিডিও ধারণ করেন। ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী আব্দুস সবুর নামে এক

গণমাধ্যমকর্মী জানান, ‘দুপুরে খবর সংগ্রহের কাজে চৌবাড়িয়া বাজারের উদ্দেশে আমরা তিন সংবাদকর্মী যাচ্ছিলাম। এ সময় দেখতে পাই, অপরিচিত এক ছেলে ও এক মেয়েকে মি;থ্যা অ;পবাদ দিয়ে রাস্তার ওপরে দুই বখাটে মারধর করছে। তাৎক্ষণিকভাবে আমরা এর প্রতিবাদ করি এবং মোবাইলে মা;র;ধরে;র ভিডিও ধারণ করি। তবে আমাদের দেখে বখাটেরা

ভুক্তভোগী ওই ছেলেমেয়েকে দ্রুত স্থানীয় পৌর কাউন্সিলর তাসির উদ্দিনের কাছে নিয়ে যায়। ওই বখাটেদের দেখে মনে হচ্ছিল তারা মাদকসেবী।’ নাম প্রকাশ না করার শর্তে তালন্দ ললিত মোহন কলেজে অধ্যয়নরত একজন শিক্ষার্থী জানান, ভুক্তভোগী ওই তরুণ-তরুণীকে সকালে কলেজ চত্বরের আশপাশে ঘুরতে দেখেছেন তাঁরা। হয়তো তাঁরা কলেজে ভর্তি

সংক্রান্ত কাজে এসেছিলেন। কিন্তু পরে মাদকসেবীদের হামলার শিকার হয়েছেন। তালন্দ বাজার ও এর আশপাশের এলাকায় বখাটেদের আনাগোনা বেড়েছে। এদিকে ঘটনার ব্যাপারে জানতে অভিযুক্ত বখাটে মইনুল ও রাজুর সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। অভিযুক্ত মইনুল বলেন, ‘এই বিষয়ে আপনাদের নিউজ করার প্রয়োজন নেই।’ এ বিষয়ে আরেক অভিযুক্ত

রাজু কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। বিষয়টি নিয়ে তানোর থানার ওসি রাকিবুল হাসান বলেন, ‘খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে। যেই দোষী হোক না কেন, ওই ভুক্তভোগীরা থানায় অভিযোগ করলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

Categories
Uncategorized

‘আমার স্ত্রী পা‌লি‌য়ে গে‌ছে, ঘণ্টাখানেক পরেই আমি আ’ত্মহ’ত্যা করবো’

রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে গা‌য়ে আগুন দি‌য়ে আত্নহত্যার চেষ্টা করেন মামুন (২৮) নামের এক যুবক। বৃহস্পতিবার (২৭ জানুয়ারি)

দুপুর ১২টার দিকে জাতীয় প্রেসক্লাব চত্বরে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত জনগণ ও পুলিশ সদস্যরা মামুনকে উদ্ধার করে। পুলিশ জানায়, ওই ব্যক্তির বাড়ি গাজীপুরের কাপাসিয়ায়। জানা যায়, পারিবারিক অশান্তি ও দুশ্চিন্তা থেকে গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন ওই

যুবক। ঘটনাস্থলে তিনি বলেন, আমার কেউ নাই। আমার স্ত্রী টাকা পয়সা নি‌য়ে অন্য ছে‌লের সা‌থে পা‌লি‌য়ে গে‌ছে। আর ঘণ্টাখানেক পরেই আমি আ;ত্মহ;ত্যা করবো। এ‌ বিষ‌য়ে শাহাবাগ থানার প্রেট্রোল ইনেপেক্টর (পিআই) শেখ আবুল বাসার গণমাধ্যমকে জানান, দ্বিতীয় বি‌য়ে করার কার‌ণে তার প্রথম স্ত্রী বাবার বাড়ি চলে গেছে, আর তার দ্বিতীয় স্ত্রী টাকা

পয়সা নিয়ে পালিয়ে গে‌লে এই অশান্তি থেকে সে গায়ে আগুন দিয়ে আ;ত্মহ;ত্যার চেষ্টা চালায়। তাকে থানায় নেয়া হয়েছে। ওই যুবকের বিরু;দ্ধে আত্নহ;ত্যা মামলা হবে বলেও জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

Categories
Uncategorized

উত্তে;জক বড়ি খেয়ে স্বামীর বি;কৃত যৌ;;ন অ;নাচার, হাসপাতালে কাঁতরাচ্ছেন নববধূ

যৌতুকের টাকা না পেয়ে যৌ;;ন উ;ত্তেজ;ক বড়ি খেয়ে নববধূর সঙ্গে (১৯) বিকৃত সঙ্গম করেছে পা;ষ;ন্ড স্বামী। অসহ্য ব্যাথায় নববধূ
মিনতিও পা;ষ;ন্ড স্বামীর মন গলাতে পারেননি।

অতিরিক্ত র;;ক্ষক;রণ হওয়ায় মিনতি চিৎ;কার করলে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।
গত রবিবার (২৩ জানুয়ারি) গভীর রাতে নাটোরের গুরুদাসপুর পৌর সদরের ২নং ওয়ার্ডের পার-গুরুদাসপুর মহল্লায় ঘটনাটি ঘটে। পরে ওই গৃহবধূর পিতা মো. রাশিদুল ইসলাম বাদী হয়ে মেয়ে জামাই

মুক্তার হোসেনকে আসামী করে গুরুদাসপুর থানায় মামলা দায়ের করেছেন। আজ বুধবার (২৬ জানুয়ারি) উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক অরিফা আফরোজ বানু জানান, ওই নববধূ বি;কৃত যৌ;;নাচা;রের আলামত নিয়ে চিকিৎসা কেন্দ্রে আসেন। স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে যৌ;;ন অ;নাচা;রের বর্ণনা রোগীর মুখে শুনেছি, তবে ঘটনার দুদিন পরে চিকিৎসা নিতে আসায় স্বল্প

আলামত পাওয়া গেছে। তিনি হাসপাতালে ভর্তি আছেন। ভুক্তভোগী নববধূর পরিবার ও মামলার নথি সূত্রে জানা যায়, সাতমাস আগে পারিবারিক-ভাবে পার-গুরুদাসপুর মহল্লার মানিক উল্লাহর ছেলে মুক্তার হোসেনের (৪০) সাথে মিনতির বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই যৌতুক-লোভী স্বামী মুক্তার কারনে অকারনে নববধূকে শারী;রিক ও

মানষিকভাবে নি;র্যাত;ন চালিয়ে আসছিলেন। একপর্যায়ে রবিবার গভীর রাতে যৌ;;ন উ;ত্তেজ;ক বড়ি খেয়ে স্ত্রীর যৌ;;না;ঙ্গে ও পা;য়ুপথে উপর্যোপরি নি;র্যাত;ন করায় অতিরিক্ত র;;ক্ষক্ষ;রন হয়। অতিরিক্ত র;;ক্তক্ষ;রণের কারণে অসুস্থ নববধূ হাসপাতালের বেডে কাঁ;তরা;চ্ছেন।
নি;র্যা;তিত নববধূ জানান, বিয়ের পর থেকেই নিয়মিত যৌ;;ন উ;ত্তেজ;ক

বড়ি খেয়ে তাঁকে বিকৃত যৌ;;ন নি;র্যা;তন করতেন স্বামী মুক্তার হোসেন। নিষেধ করলে তিনি শারী;রিকভাবে নি;র্যা;তন করতেন। স্বামীর দৃষ্টান্তমুলক শা;স্তি দাবী করেন ওই গৃহবধূ। অভিযুক্ত স্বামী মুক্তার হোসেন যৌ;;ন উ;ত্তে;জক বড়ি সেবনের কথা স্বীকার করে মুঠোফোনে জানান, তার স্ত্রী গ;র্ভবতী। বেশ ক’দিন বিরতির পর তার সাথে শারী;রিক মিলনের কারনে

র;;ক্তক্ষ;রণ হয়েছে বলে দাবি করেন তিনি। এ ব্যাপারে গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল মতিন জানান, মামলার পরিপ্রেক্ষিতে দ্রুততম সময়ের মধ্যে আসামীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে।

Categories
Uncategorized

বিমানবাহিনীর পাইলট থেকে যেভাবে নায়ক রিয়াজ

ঢা’কাই ছ’বির অ”ন্যতম রো’মা’ন্টি”’ক না’য়ক রি’য়াজ। আ’জ সোম’বার তার জন্ম’দিন। ১৯৭২ সা’লের ২৬ অ’ক্টো’বর তি’নি জন্ম’গ্রহণ

ক’রেন। ছো’ট’বেলা থেকেই পড়া’শো’নায় মেধা’বী ছি’লেন যশো’রের ছে’লে রি’য়াজ। চাক’রিজীব’ন শুরু করে’ছিলেন বি’মান’বাহি’নী’র পা’ইল’ট হিসেবে৷ প্রয়া’ত নায়ক জ’সী’র হাত ধরে ‘বাং’লার নায়ক’ না’মের চল’চ্চি’ত্রের মা’ধ্যমে রি’য়াজে’র অ’ভি’ষেক হয় ১৯৯৫

সালে। ১৯৯৭ সালে মহ’ম্ম’দ হান্নান পরিচা’লিত ‘প্রা’ণের চে’য়ে প্রিয়’ ছবির মাধ্যমে’ জন’প্রিয় নায়কে প’রিণত হন এই নায়ক। এ’রপর সাল’মান শাহে’র মৃ’ত্যু’তে যে শূ’ণ্য’ দেখা দেয় প্রযো’জক ও পরি’চাল’করা রিয়া’জকে বেছে নেন সেই শূণ্য’তা পূ’রণের নায়’ক হিসেবে।
শা’বনূ’রের স’ঙ্গে জু’টি বেঁধে আকাশ ছোঁয়া জন’প্রিয়তা

পান রি’য়াজ। নানা কারণে সেই জু’টি ভে’ঙ্গে গেলে পূ’র্ণিমা’র স’ঙ্গেও জু’টি বেঁ’ধে দা’রুণ সাফল্য পান রি’য়াজ। দীর্ঘ ‘ক্যারিয়া’রে শতা’ধিক সিনে’মায় অ’ভিনয় করা রি’য়াজ উপ’হার দিয়ে’ছেন ‘নারী’র মন’, ‘বিয়ের ফুল’, ‘এই মন চায় যে’, ‘হৃদয়ের আয়না’, ‘প্রা’ণের চেয়ে প্রিয়’, ‘প্রে’মের তাজ’মহল’, ‘স্বপ্নের বাসর’, ‘ও প্রি’য়া তুমি কোথায়’,

‘হৃদ’য়ের বন্ধন’, ‘দুই দুয়ারী’, ‘কাজের মে’য়ে’, ‘শ্যামল ছায়া’, ‘দারুচি’নি দ্বী’প’, ‘শ্ব’শুর’বাড়ি জি’ন্দাবাদ’, ‘সাব’ধান’, ‘মনের মা’ঝে তুমি’, ‘হৃদ’য়ের কথা’, ‘খবরদার’, ‘লাল দরিয়া’, ‘মিলন হবে কতদিনে’, ‘শা’স্তি’, ‘কি যাদু করিলা’, ‘হাজা’র ব’ছর ধরে’, ‘পা’গল তোর জন্য’, ‘কৃষ্ণ’পক্ষ’সহ অসংখ্য ব্যব’সা স’ফল ও

প্রশংসিত সিনে’মা। এছাড়াও রি’য়াজ ভা’র’তীয় চল’চ্চিত্র’কার ও অ’ভি’নেতা ম’হেশ মা’রেকা’রের ‘ই’ট ও’য়াজ রেই’নিং দ্যাট না’ইট’ নামে এক’টি ইংরেজি চল’চ্চিত্রেও অ’ভিনয় ক’রেছেন। ক’লকা’তার সঙ্গে বেশ কিছু যৌ’থ প্রযো’জনার ছবি’তেও দেখা গেছে তাকে। অ’নেকদিন ধ’রেই সিনে’মাতে অনি’য়মিত তিনি। তবে সম্প্র’তি আ’বারও নতুন করে

সিনায় কাজ শুরু ‘করে’ছেন। দীপং’কর দীপ’র ‘অ’পা’রে’শন সুন্দ’রবন’ ছবি’তে কাজ কর’ছেন রিয়া’জ। চলচ্চিত্রে অ’ভি’নয়ের জন্য তিনি তি’নবা’র জা’তীয় চল’চ্চিত্র শ্রেষ্ঠ অ’ভিনে’তার পুর’স্কা’রে ভূ’ষি”ত হয়ে’ছেন। চলচ্চি’ত্রগু’লো হলো- ‘দুই দুয়ারী’ (২০০০), ‘দা’রু’চিনি দ্বীপ’ (২০০৭) ও ‘কি যাদু ক’রিলা’ (২০০৮)।

Categories
Uncategorized

সিলেটে কোটি টাকা নিয়ে স্বামী খুঁজছেন বড়লোক ডিভোর্সি নারী

নিঃসঙ্গতার অবসান ঘটাতে কোটিপতি না’রীরা বিয়ের জন্য স্বা’মী খুঁজছেন। বিয়ের ক্ষেত্রে বিদেশি স্বা’মী এবং তাদের সন্তানদের নাগরিকত্ব পাবার আ’ই’ন সংস্কার হওয়ার

পরই তারা এ অ’নু’স’ন্ধা’নে নেমেছেন। খবর- হাফিংটন পোস্ট।এদেরই একজন ৪০ বছরের হেসা।তিনি বিয়ের ইচ্ছে ব্যক্ত ক’রে বলেন, তার বাবা মা’রা যাওয়ার পর উ’ত্তরাধিকার সূ’ত্রে প্র’চু’র ধ’নসম্পদের মালিক। তাকে সম্মান করবেন এমনই এক স্বা’মী খুঁজছেন তিনি।২০১২ সালে

সৌদি সাময়িকী রোয়া এক প্র’তিবেদন বের হয়।এতে বলা হয়, এক না’রী ভাল স্বা’মীর খোঁ’জে ৫০ লাখ সৌদি রিয়াল নিয়ে অপেক্ষা ক’র’ছে’ন। যিনি বিবা’হিত জীবন ও দায়িত্বকে গু’রু’ত্বের স’ঙ্গে বিবেচনা করবেন। ২০১৪ সালে আমিরাতের একটি নিউজ সাইট জা’নায়, অনেক সৌদি কোটিপতি না’রী টুইটারে বিয়ের আ’গ্রহের

কথা জা’নান।এমন একটি পোস্টে সৌদি এক না’রী জা’নান, তিনি তা’লাকপ্রা’প্তা ও নিঃস’ন্তান। তিনি এমন একজন স্বা’মী খুঁজছেন যিনি তাকে ভালবাসবেন।উত্তরাধিকার সূ’ত্রে তিনি একশ মিলিয়ন রিয়ালের মালিক। ৩৯ বছর ব’য়সী এই না’রী তারপারিবারিক ব্য’ব’সা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা ক’র’ছে’ন।এর আগে ২০০৭ সালে এক সৌদি না’রী স্বা’মী খুঁজছিলেন।

চা’হিদা বলতে তিনি স্বা’মীর ব্য’ক্তিত্বকেই প্রাধান্য দেয়ার কথা বলেন। তার সম্পদের পরিমাণ ছিল ৭০ লাখ রিয়াল। আরোও পড়ুনঃ দেবর-ভাবির প’র’কীয়া, নতুন বাড়িতে ওঠার ১০ দিনের পর মা’রা গে’লেন স্বামী– বিয়ের উদ্দেশ্য হল এটা যে, স্বামী-স্ত্রী দুজনেই পূর্ণরূপে সন্তু’ষ্ট হবে, সুখী হবে ওদের দু’জনের জীবনই। শারীর এবং মা’নসিকভাবে

একা প’ড়ে যাওয়াকে স্ত্রীরা কখনই সহ্য ক’রতে পারে না। তবে, মুদ্রার উল্টা পিঠও আছে। নতুন খবর হচ্ছে, পাবনার ঈশ্বরদীতে দেবরের স’ঙ্গে বড় ভাবীর প’র;কী’য়া। বারবার বিচার সালিস। এরপর শ্বশুরবাড়ি ছে’ড়ে ভাড়া বাসায় ওঠার ১০ দিনের মাথায় ব্যবসায়ী স্বামীর র’হস্যজ’নক মৃ’;ত্যু। এ ঘ’টনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নি;’হ;তের স্ত্রী ও দেবরকে

পু;লি;শি হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। গতকাল শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ঈশ্বরদীর রূপনগর এলাকায় এ ঘ’টনা ঘ’টে। আরো পড়ুন: অবষেশে এবার যার স’ঙ্গে বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন জয়া আহসান !!–দুই বাংলার জনপ্রিয় অ’ভিনেত্রী জয়া আহসান বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন। এমনি গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। জয়া নাকি প্রে’ম্ও করছেন।

ভা’রতীয় সংবাদ’মাধ্যম টা’ইমস অব ইন্ডিয়াকে দেয়া এক সা’ক্ষাত’কারে জয়া আহসানের ব্য’ক্তিগ’ত বিষয়ে আ’লোচনা হয়। কলকাতার এক তারকার ব’রাত দিয়ে জানতে চাওয়া হয়, জয়া নাকি বাংলাদে’শের একজ’নের স’ঙ্গে প্রে’ম করছেন। এছাড়া আ’গামী বছর নাকি বি’য়েও করবেন? জয়ার কাছে জা’নতে চাওয়া হয়, তাহলে কি সংবাদটি গু’জব? এমন প্রশ্নের জবাবে

জয়া বলেন,আমি প্রে’ম করছি। যার স’ঙ্গে স’ম্পর্কে জড়িয়েছি তিনি বাংলাদে’শের। ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির কেউ নন। কিন্তু বিয়ের দি’নক্ষণ এখনও ঠিক হয়নি। এদিকে, স’ম্প্রতি বাংলাদেশে মু’ক্তি পেয়েছে জয়া আহসান অ’ভিনীত কলকা’তার ছবি ‘কণ্ঠ’। নন্দিতা রায় ও শি’বপ্র’সাদ মু’খোপাধ্যা’য়ের যৌথ পরিচাল’নায় ছবিটি গত মে মাসে ভা’রতে মু’ক্তি পায়। সাফটা চু’ক্তি’র আওতায় ‘কণ্ঠ’ দেশে পরি’বেশন করছে ইমপ্রেস টে’লিফিল্ম লি.।

Categories
Uncategorized

রংপুরে স্বামীর বিশেষ অ;ঙ্গ কে;টে চিঠি লিখে স্ত্রী উধাও

মানবসমাজে কত ধরণের প্রেমই তো আছে! তবে যত ধরণের প্রেমই থাকুক না কেন ‘পর;কীয়া’ প্রেমকে সবাই একটু ভিন্ন চোখে দেখে। এর

ঝাঁঝ অতি মা;রাত্ম;ক। রংপুরের মিঠাপুকুরে পর;কীয়ার জেরে স্বামী সোলাইমান মিয়ার (২৪) গো;পনা;ঙ্গ কে;টে নিয়ে পালিয়ে গেছে স্ত্রী। পরে তাকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সোমবার (২৪ জানুয়ারি) মধ্য রাতে উপজেলার

দমদমা বাজারের শিমুল পাড়া গ্রামে এঘটনা ঘটে।সোলাইমান মিয়া ওই গ্রামের ফুলবাবু ওরফে ফুলু মিয়ার ছেলে। তিনি ট্রাক ড্রাইভারের সহকারী হিসেবে দেশের বিভিন্ন এলাকায় হেলপারের কাজ করতেন। স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, মাগুরা জেলার রাহেনা বেগম নামে এক নারীর সঙ্গে মোবাইল ফোনে সম্পর্ক গড়ে উঠে সোলাইমানের।

দুই বছর আগে মাগুরা জেলার ওই নারীর সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। বিয়ের এক বছর পর সোলাইমান তার স্ত্রীকে গ্রামের বাড়ি মিঠাপুকুরে নিয়ে এসে সংসার শুরু করেন। সম্প্রতি সোলাইমানের স্ত্রী রাহেনা বেগম অভিযোগ তুলেন তার স্বামী পর;কীয়ায় জড়িয়ে পড়েছে। এ নিয়ে তাদের মধ্যে প্রায়ই ঝ;গড়া হতো। সোমবার রাতে খাওয়া শেষে তারা ঘুমিয়ে পড়েন।

রাত আনুমানিক আড়াইটার দিকে স্ত্রী রাহেনা বেগম তার স্বামী সোলাইমান মিয়ার বিশেষ অ;ঙ্গ কে;টে নিয়ে পালিয়ে যান। পরে তাকে মু;মূ;র্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) বিকেলে বিষয়টি নিশ্চিত করে স্থানীয় ইউপি সদস্য রাজু আহম্মেদ জানান, ওই নারী একটি চিঠি লিখে গিয়েছেন।

সেখানে তার পূর্বের সংসার নষ্টের জন্য বর্তমান স্বামী সোলাইমানকে দায়ী করেছেন। সোলাইমানের মোবাইলে একাধিক মেয়ের সঙ্গে কথা বলার বিষয়টি তিনি নিশ্চিত করেন।

Categories
Uncategorized

মিশা-জায়েদ আল্লাহকে ভয় করো, নয় আল্লাহই টেনে নামাবে: আলমগীর

মিশা সওদাগর ও জায়েদ খানের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করার হুমকি দিলেন অভিনেতা আলমগীর। ২৮ জানুয়ারি চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির

নির্বাচন। এ উপলক্ষে আজ রাজধানীর একটি কনভেনশন সেন্টারে ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেল পরিচিতি অনুষ্ঠান হয়। তাঁদের শুভেচ্ছা জানাতে গিয়েছিলেন ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় এ অভিনেতাও। সেখানকার আলোচনায় উঠে আসে ভোটাধিকার হারানো ১৮৪ জন শিল্পীর

প্রসঙ্গ। এই শিল্পীদের সদস্য থেকে সহযোগী সদস্য বানানোর প্রক্রিয়ায় অভিনেতা আলমগীরের স্বাক্ষর ছিল বলে প্রচারিত হয়। অনুষ্ঠানের মঞ্চে উঠে বিষয়টি নিয়ে মিশা-জায়েদকে চ্যালেঞ্জ করে আলমগীর বলেন, ‘১৮৪ ভোটার বাতিলের বিষয়টা আমাকে দেখাও। সেখানে আমার স্বাক্ষর আছে, আমি জড়িত আছি—এটা প্রমাণ করতে পারলে কথা দিলাম,

আমি তোমাদের প্যানেলকে ভোট দেব। আর যদি প্রমাণ না দিতে পারো তবে আমি তোমাদের নামে আইনি ব্যবস্থা নেব। ফারুক ভাই, সোহেল রানা ভাই, উজ্জ্বল ভাই যদি আমার সঙ্গে নাও আসেন, আমি একাই তোমাদের নামে ফৌজদারি মামলা করব। ‘ মিশা ও জায়েদ খানকে মিথ্যা থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানিয়ে ‘মায়ের দোয়া’ ছবির অভিনেতা বলেন, ‘মিথ্যার

বেসাতি বন্ধ করো। আল্লাহকে ভয় করো৷ নতুবা আল্লাহই টেনে নামাবে। আমরা যারা আছি, ইন্ডাস্ট্রির গাছের মতো৷ আমাদের মেরে ফেলে আগায় পানি দিও না। পাতাগুলো ঝরে যাবে। অলরেডি যাচ্ছে। সতর্ক হও৷ আমাদের কাছে এলে ভালো পরামর্শের জন্য আসো৷ আমরা যারা মোস্ট সিনিয়র, সবাই চাই চলচ্চিত্রের অবস্থা ভালো হোক। ‘

সভাপতি পদের প্রার্থী ইলিয়াস কাঞ্চনকে নিয়ে বলেন, ‘আজ এখানে ইলিয়াস কাঞ্চন আছে। সভাপতি পদে নির্বাচন করছে। ও এমন একজন মানুষ যার আসলে প্রশংসার শেষ নেই। ওর সাথে কথা বললে মনে হয় বড় ভাইয়ের সাথে কথা বলছি। প্রায়ই ভাবি, ও আমার বড় ভাই হলো কবে। ওর কথা শুনলে মুগ্ধ হই। আমি কাঞ্চন ও তার প্যানেলের জন্য শুভেচ্ছা জানাই।

আমি তোমাদের প্যানেলকে ভোট দেব। আর যদি প্রমাণ না দিতে পারো তবে আমি তোমাদের নামে আইনি

Categories
Uncategorized

নৌকায় ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপ যাওয়ার পথে ঠাণ্ডায় ৭ বাংলাদেশির মৃ;ত্যু

নৌকায় ইউরোপে যাওয়ার পথে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিতে গিয়ে অতি ঠান্ডায় জমে অন্তত ৭ বাংলাদেশি অভিবাসন প্রত্যাসীর মৃ;;ত্যু হয়েছে। অবৈধভাবে লিবিয়া

থেকে ইতালির লাম্পেদুসা দ্বীপের উদ্দেশে যাওয়ার পথে এ ঘটনা ঘটে বলে জানানো হয় বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মঙ্গলবার তাদের মৃ;;ত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন ল্যাম্পে-দুসার মেয়র সালভাদর মার্টিওলো। নৌকাটিতে ২৮০ অভিবাসনপ্রত্যাশী

ছিলেন। এদের মধ্যে অধিকাংশই বাংলাদেশ ও মিশরের নাগরিক। এ ঘটনায় নি;হ;তের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।
এদিকে মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে ইতালির আগ্রিজেন্তোর প্রসিকিউটর লুইগি প্যাত্রোনাজিও জানিয়েছেন, অতি ঠান্ডায় দ্রুত শরীরের তাপমাত্রা কমে আসায় প্রাণ হারিয়েছেন তারা। তবে যারা বেঁচে আছেন

তাদের কতজন বাংলাদেশি সেটি তাৎক্ষণিকভাবে যাচাই করা যায়নি বলে জানান তিনি। উপকূলরক্ষীরা রাতে নৌকাটিকে ল্যাম্পেডুসার কাছে ল্যাম্পোনি উপকূলে দেখতে পেয়েছিলেন। পরে লামপিওনের উপকূল থেকে প্রায় ২৯ কিলোমিটার দূরে কোস্টগার্ডের সদস্যরা ওই নৌকার সন্ধান পান। এরপর সেখানে উদ্ধার অভিযান চালানো হয়। এ ঘটনায় তদন্ত

শুরু হয়েছে বলেও জানান তিনি। উরোপে অভিবাসনপ্রত্যাশীদের প্রধান গন্তব্য ইতালি। তাদের প্রবেশের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ রুট হিসেবে বিবেচনা করা হয় ইতালির উপকূলকে। গত কয়েক মাসে নৌকাযোগে অভিবাসনপ্রত্যাশীদের ইউরোপে প্রবেশের প্রবণতা বেড়েছে। চলতি বছরে ১ হাজার ৭৫১ জন অভিবাসনপ্রত্যাশী উপকূল থেকে ইতালির বিভিন্ন বন্দরে পৌছেছেন।

ল্যাম্পোনি উপকূলে দেখতে পেয়েছিলেন। পরে লামপিওনের উপকূল থেকে প্রায় ২৯ কিলোমিটার দূরে কোস্টগার্ডের

Categories
Uncategorized

হঠাৎ যে কারণে ড্রেনে নেমে পড়লেন মেয়র আতিকুল

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম ড্রেনের মধ্যে, এমনই একাধিক ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ঘুরে বেড়াচ্ছে।

কেবলই তা-ই নয় গতকাল মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) দিনগত রাত ১টা ৬মিনিটে এমন ৫টি ছবি ‘ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন’ এর ফেসবুক পেজে শেয়ার করা হয়েছে। এই ছবি নিয়ে নেটিজেনদের মধ্যে তৈরি হয়েছে তুমুল আগ্রহ ও আলোচনা। সবার একটাই প্রশ্ন কেন তিনি ড্রেনে

নামলেন? এক কথায় তার জবাব হলো- ডিএনসিসির ‘কাজের মান নিশ্চিত করতে নিজেই ড্রেনে নেমে পড়েছেন।’ ফেসবুক পেজে শেয়ার করা পোস্টে ক্যাপশন দেওয়া হয়েছে, ‘জনগণের পয়সায় শহর উন্নয়নের কাজ হয়। জনগণ যাতে এর সর্বোচ্চ সুফলভোগী হয় এটা নিশ্চিত করা জনপ্রতিনিধির কাজ। মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম

সেটা নিশ্চিত করতে নিজেই ড্রেনে নেমে কাজের মান পরীক্ষা করে দেখছেন।’ খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, মেয়র আতিকুল গতকাল মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) রাজধানীর মোহাম্মদপুরে লাউতলা খাল উচ্ছেদ অভিযান পরিদর্শন করতে যান। ওই অভিযানস্থলের কাছেই একটি সড়কে ড্রেন তৈরির কাজ চলছিল। সেই কাজের মান দেখতে নিজেই ড্রেনে নেমে পড়েন তিনি।

এরপরই সেই ছবি তুলে অনেকেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করছেন। ছবিগুলোর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা আবুল বাসার মুহাম্মদ তাজুল ইসলাম। এ ছাড়াও উত্তর সিটির তথ্য কর্মকর্তা পিয়াল হাসান বলেন, ‘মেয়র আতিকুল ইসলাম জনগণের কল্যাণে জনপ্রতিনিধিদের যথাযথভাবে

দায়িত্ব পালন করতে আহ্বান জানিয়েছেন। মেয়র বলেছেন, শহরের আর একটি জায়গাতেও অপরিকল্পিত নগরায়ণ হতে দেওয়া যাবে না। ড্রেনেজ ব্যবস্থা থেকে শুরু করে প্রতিটি কাজ হতে হবে পরিকল্পিত।’ ফেসবুকে শাহেদ শফিক নামের এক নেটিজেন মেয়র আতিকুলের ড্রেনে নামার ছবি পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘ছবিটা অনেক কথা বলে। ভালো লাগার একটি ছবি!

মেয়র হোক এমন…’। এভাবেই অনেকে মেয়রকে উদাহরণ হিসেবে দেখতে অন্যান্য জনপ্রতিনিধিদের প্রতি আহ্বান জানান। একইসঙ্গে মেয়রকে ধন্যবাদও দেন তারা।

Categories
Uncategorized

সৌদি আরবে ৩ কোটি টাকার স্বর্ণসহ বাংলাদেশ বিমানের কেবিন ক্রু শুভ আটক

৩ কোটি টাকার গোল্ডসহ সৌদি আরবে আটক হলেন বিমানের কেবিন ক্রু শুভ। পুরো নাম রুহুল আমিন শুভ। তিনি বিমানের ফ্লাইট স্টুয়ার্ড।

এই ঘটনায় বিমান কতৃপক্ষ তাকে চাকরীচ্যুত করেছে। তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহনের প্রক্রিয়া চলছে। জানাগেছে শুভ বিমানের ফ্লাইট সিডিউলিং শাখার সাকিল বাহিনীর প্রধান। জানাগেছে দীর্ঘদিন ধরে শুভর নেতৃত্বে একটি গ্রুপ দেশ থেকে শত শত কোটি টাকা পাচার করে

নিয়ে বিদেশ থেকে গোল্ড আনতেন। বুধবার দুপুরে সৌদি আরবের জেদ্দা আন্তজাতিক বিমানবন্দরে এই ঘটনা ঘটে। জানাগেছে শুভ বাংলাদেশ বিমানের ঢাকাগামী ফ্লাইট বিজি৪০৩৬ এর কেবিন ক্রু ছিলেন। বিমানের উঠার আগ মুহুর্তে সৌদি পুলিশ শুভর ব্যাগ তল্লাশী করে তার কাছ থেকে ৩ কোটি টাকার গোল্ড ও বিপুল পরিমান বিদেশী মুদ্রা

দেখতে পান। পুলিশ তার কাছে এসব গোল্ডের কাগজপত্র দেখতে চাইলে তিনি দেখাতে ব্যর্থ হন। এরপর পুলিশ তাকে আটক করে থানায় সোপর্দ করেন। সিভিল এভিয়েশনের নিয়ম অনুযায়ী প্রতিটি আন্তজাতিক ফ্লাইটে ১০ জন কেবিন ক্রু থাকতে হবে। কিন্তু বিমানবন্দরে একজন কেবিন ক্রু আটক হওয়ায় বিমানের ওই ফ্লাইট বাধ্য হয়ে ৯জন কেবিন ক্রু নিয়ে

ঢাকায় আসতে হয়েছে। এই ঘটনায় শুভর গডফাদার শাকিলকে খুজছে পুলিশ।সৌদি পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে শুভ তার বাহিনীর সদস্যদের মধ্যে শাকিল ও শেহজাদ নামে বিমানের দুই কর্মীর নাম জানিয়েছে। সৌদি পুলিশ সুত্রে জানাগেছে শুভ গ্রুপের বেশিরভাগ কর্মী বিমানের কেবিন ক্রু ও ইঞ্জিনিয়ারীং বিভাগের সদস্য। তাদের গডফাদার হলেন সিডিউলি‌ং

শাখার শাকিল। এই শাকিল সিডিউলিংয়ে থেকে তার বাহিনীর সদস্যদের সৌদি আরবসহ যেসব দেশ থেকে গোল্ড আনা হয় সেসব দেশে ফ্লাইট দিতেন। সম্প্রতি চলে যাওয়া বিমানের একজন পরিচালকের হাত ধরে শাকিল এই সিডিউলিং শাখায় আসেন। এরপর তিনি পুরো শাখার গডফাদার বনে যান। ওই পরিচালকের ভাই পরিচয় দিয়ে শাকিল পুরো শাখায় তাসের রাজত্ব

কায়েম করেন। এসব দেশে ফ্লাইট নিতে হলে শাকিলকে ফ্লাইট প্রতি ১০ হাজার টাকা দিতে হতো। শাকিল বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় বিশাল আলিশান বাড়ির মালিক। এই বাড়ির কিস্তির টাকাও এই গোল্ড ক্রুরা সরবরাহ করতেন। অভিযোগ উঠেছে যে ফ্লাইটে রুহুল আমিন শুভ গোল্ড নিয়ে আটক হয়েছেন ওই ফ্লাইটটিও শাকিল দিয়েছিলেন মোটা অংকের

টাকা নিয়ে। বিমান সুত্রে জানাগেছে এই ঘটনায় বিমান কতৃপক্ষ শাকিল, শুভ ও শেহজাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহন করবেন।