Categories
Uncategorized

খুব পী’ড়ায় আছেন পূজা চেরি

খুব পীড়ায় আছি ভাইয়া। শুটিং, রিহার্সেল, পরীক্ষা, ভাইয়ের বিয়ে- এসব নিয়ে খুব ব্যস্ততার মধ্যে সময় পার হচ্ছে।’ কুশল বিনিময় শেষে একদমে কথাগুলো বললেন ঢাকাই সিনেমার আলোচিত চিত্রনায়িকা পূজা চেরি।
সম্প্রতি নিজের ফেসবুক প্রোফাইল ছবি পরিবর্তন করেছেন এ অভিনেত্রী। ক্যাপশনে লিখেছেন #হৃদিতা। সে ছবির সূত্র ধরেই ফোনালাপ পূজার

সঙ্গে।২০১৯-২০ অর্থবছরে সাধারণ শাখায় সরকারি অনুদান পেয়েছে ‘হৃদিতা’ সিনেমাটি। আনিসুল হকের ‘হৃদিতা’ উপন্যাস অবলম্বনে এটি নির্মাণ করবেন ইস্পাহানী আরিফ জাহান। নাম ভূমিকায় অভিনয় করবেন পূজা চেরি। তার বিপরীতে চিত্রনায়ক এবিএম সুমন।

‘হৃদিতা’ চরিত্রের জন্য কীভাবে প্রস্তুতি নিচ্ছেন? উত্তরে নায়িকা বলেন, ‘আমি আসলে খুঁজে পাচ্ছিলাম না হৃদিতা দেখতে কেমন। আমার কাছে মনে হচ্ছিল হৃদিতা মানে স্নিগ্ধ একটি মেয়ে। পরিচালকও স্নিগ্ধ হৃদিতাকে চেয়েছেন। ভারী কোনো মেকআপ থাকবে না, জাস্ট নরমাল লুক। দেখলে মনে হবে পাশের বাসার একটি মেয়ে। সে হিসেবেই নিজেকে প্রস্তুত করছি।’

ফেসবুকে মেরুন রঙের শাড়ি পরিহিত একাধিক ছবি শেয়ার করেছেন অভিনেত্রী। ‘হৃদিতা’ কী সবসময় শাড়ি পড়বে? প্রশ্ন করতে পূজা বলেন, ‘না, না। হৃদিতা সব সময় শাড়ি পরে না। মাঝে মধ্যে হুট করেই পরে।’

সিনেমায় হৃদিতার বাবা চরিত্রে অভিনয় করবেন মানস বন্দ্যোপাধ্যায়। আর মায়ের চরিত্রে থাকবেন আঞ্জুমান আরা বকুল। এবিএম সুমন অভিনয় করবেন কবির চরিত্রে। চলতি মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে শুটিং শুরু হওয়ার কথা রয়েছে। সেভাবেই এগিয়ে যাচ্ছে টিমের কাজ। এমনটাও জানিয়েছেন পূজা চেরি।